29 C
Dhaka
Wednesday, April 24, 2024

কোমল পানীয়ের সঙ্গে ঘুমের ওষুধ,অচেতন অবস্থায় শ্বাসরোধ করে স্ত্রীকে হত্যা

ডেস্ক রিপোর্ট:

প্রথমে কোমল পানীয়ের সাথে ঘুমের ওষুধ  খাওয়ানো হয় তারপর অচেতন অবস্থায় শ্বাসরোধ করে নিজের স্ত্রী ছাবিনা খাতুনকে হিত্যার করেন তাঁর স্বামী শিপন শেখ। অভাব-অনটন আর পারিবারিক কলহের কারণে স্ত্রী ছাবিনা খাতুনকে হত্যা করেন বলে তিনি পুলিশকে জানিয়েছেন। লাশ গুম করতে বাড়ির পাশে ডোবায় ফেলে দেন আসামি শিপন।

হত্যাকাণ্ডের পর এ দায় থেকে বাঁচতে প্রতিবেশিদের কাছে তিনিই গল্প সাজান ‘গরু বিক্রির টাকা নিয়ে তার স্ত্রী ছাবিনা পালিয়ে গেছে’। তবে পুলিশের হাতে ঠিকই ধরা পড়ে গেছেন। পুলিশের জিজ্ঞাসাবাদে স্বীকার করলেন তার স্ত্রী ছাবিনাকে হত্যার কথা।

বুধবার(৬ জুলাই) দুপুরে পাবনার বেড়া উপজেলার আমিনপুর থানায় আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে গৃহবধূ ছাবিনা খাতুন হত্যার রহস্য উদঘাটনের পর এসব তথ্য জানান সহকারী পুলিশ সুপার (সুজানগর সার্কেল) রবিউল ইসলাম। এ সময় আরও উপস্থিত ছিলেন আমিনপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) রওশন আলী।

রবিউল ইসলাম বলেন, ১২ বছর আগে তাদের বিয়ে হয়। পারিবারিক কলহের কারণে গত দুই মাস আগেই তিনি খুনের পরিকল্পনা করেন। খুন করার আগেরদিন বাড়ির একটা গরু বিক্রি করেন। গৃহবধূ ছাবিনা এনার্জি ড্রিংকস খেতে পছন্দ করে জেনে শিপন এনার্জি ড্রিংকস কিনে আনেন। রাতে তাদের তিন সন্তান পাশের রুমে ঘুমিয়ে পড়লে, প্রথমে এনার্জি ড্রিংকসের সাথে ঘুমের ঔষধ মিশিয়ে কৌশলে ছাবিনাকে তা খাইয়ে ঘুম পাড়িয়ে দেন শিপন।

তারপর গরুর দড়ি দিয়ে হাত-পা বেঁধে গামছা দিয়ে গলা পেঁচিয়ে শ্বাসরোধে হত্যা করেন। লাশ গুম করার জন্য প্রথমে বাড়ির পাশের ডোবার পানিতে ফেলে দেন। কিন্তু যখন দেখেন যে লাশ ভেসে উঠছে, তখন তিনি বাড়ি ফিরে গিয়ে একটা চাকু নিয়ে এসে গৃহবধূর পেট কেটে দেন এই ভেবে যে লাশ আর ভেসে উঠবে না এবং তিনি আর ধরা পড়বেন না।

পরবর্তীতে আটক শিপনকে আবারো ঘটনাস্থলে নিয়ে তার দেখানো মতে, স্থানীয় সাক্ষীদের সামনে হত্যাকান্ডে ব্যবহৃত এনার্জি ড্রিংকসের বোতল, দড়ি, গামছ ও চাকু উদ্ধার করা হয়।

গতকাল মঙ্গলবার(৫ জুলাই) সকালে আমিনপুর থানার পাইকান্দি গ্রামের একটি ডোবা থেকে গৃহবধূ ছাবিনা খাতুনের লাশ উদ্ধার করে পুলিশ। এ ঘটনায় নিহত গৃহবধূ ছাবিনার ভাই রুবেল মোল্লা বাদি হয়ে শিপনকে আসামী করে মামলা দায়ের করেন।

বুধবার বিকেলে এ মামলায় গ্রেপ্তার দেখিয়ে শিপন শেখকে আদালতে হাজির করা হলে তিনি ১৬৪ ধারায় স্বীকারোক্তিমুলক জবানবন্দি দেন। পরে তাকে কারাগারে পাঠানো হয়।

সর্বশেষ সংবাদ

ময়মনসিংহে ট্রেনের ধাক্কায় নিহত স্বামী-স্ত্রী, আহত শিশু

ময়মনসিংহ নগরীর একটি রেলক্রসিংয়ে ট্রেনের ধাক্কায় রিকশা আরোহী স্বামী-স্ত্রী নিহত হয়েছেন। এ ঘটনায় এক শিশু আহত হয়েছে। মঙ্গলবার (২৩ এপ্রিল) রাত সাড়ে ১০টার দিকে নগরীর...

ব্যাংক একীভূতকরণ প্রক্রিয়া ঋণখেলাপিদের দায়মুক্তির নতুন মুখোশ: টিআইবি

ব্যাংক একীভূতকরণ প্রক্রিয়া ঋণখেলাপি ও জালিয়াতির জন্য দায়ী মহলকে ‘দায়মুক্তি’ প্রদানের নামান্তর বলে জানিয়েছে ট্রান্সপারেন্সি ইন্টারন্যাশনাল বাংলাদেশ (টিআইবি)। সংস্থাটির ভাষ্য, তড়িঘড়ি ও জোরপূর্বক একীভূতকরণ ব্যাংকিং...

প্রথম ধাপে উপজেলায় বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় ২৬ প্রার্থী নির্বাচিত

উপজেলা নির্বাচনের প্রথম ধাপের ৭ জন চেয়ারম্যান, ৯ জন ভাইস চেয়ারম্যান এবং ১০ জন মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হয়েছেন। চূড়ান্ত তালিকা এলে...

স্ত্রীর সনদ বাণিজ্য নিয়ে কিছুই জানেন না কারিগরির সাবেক চেয়ারম্যান

সম্প্রতি গণমাধ্যমে আলোচনা এসেছে বাংলাদেশ কারিগরি শিক্ষাবোর্ডের সনদ বাণিজ্যের ঘটনা। প্রতিষ্ঠানটির সদ্য সাবেক চেয়ারম্যান আলী আকবর খান বলেছেন, আমার স্ত্রী সেহেলি পারভীনের সার্টিফিকেট বাণিজ্যের...

হিট স্ট্রোকের ঝুঁকি কমাতে যেসব নির্দেশনা দিয়েছে স্বাস্থ্য অধিদপ্তর

তীব্র তাপপ্রবাহে চরম অস্বস্তিতে রয়েছে সারাদেশের মানুষ। হঠাৎ তাপমাত্রার এমন উর্ধ্বগতিতে সবারই হাঁসফাঁস অবস্থা। অসহ্য তাপমাত্রার ফলে বাড়ছে হিট স্ট্রোক বা সান স্ট্রোকের ঝুঁকি। আবহাওয়া...